কপি আইফোন চেনার সহজ উপায়গুলো জেনে নিন

কপি আইফোন চেনার সহজ উপায়গুলো জেনে নিন

বর্তমান সময়ে নতুন ব্যবহারকারীগণ অভিজ্ঞতা কম থাকার ফলে কম দামে কপি আইফোন কিনে বিপদে পড়ছেন প্রায়ই। এই কারণে যারা আইফোন কিনতে চান তাদের জন্য কপি আইফোন চেনা  বেশ গুরুত্বপূর্ণ বিষয়। আসুন দেখে নেই কপি আইফোন চেনার সহজ কিছু উপায়।

ডিসপ্লে চেক করুন

আইফোন আসল নাকি নকল তা চেক করার সবচেয়ে অসাধারণ ও সহজ উপায় হচ্ছে ফোনের ডিসপ্লে বেজেল চেক করা। বেজেল হলো ফোনের স্ক্রিন ও ফ্রেমের মধ্যকার এক ধরনের বর্ডার। এই নিয়ম সবচেয়ে বেশি খাটে আইফোন ১০ ও এরপর আসা আইফোনসমূহের ক্ষেত্রে৷ ডিসপ্লে বেজেল সঠিকভাবে পর্যবেক্ষণ করলে বুঝতে পারবেন উক্ত ডিভাইস কপি আইফোন কিনা। কপি আইফোন এর ক্ষেত্রে অধিক বেজেল দেখতে পাবেন। ছবি বা অন্য কোনো আইফোন এর সাথে মিলিয়ে দেখলে এই বিষয়টি আরো ভালোভাবে পরিস্কার হবে।

লক ফিচার

কপি আইফোন চেনার সহজ উপায় হলো লক স্টাইল চেক করা। অরিজিনাল আইফোন এর লকস্ক্রিন থেকে ফোন আনলক করলে এনিমটেড আনলক এনিমেশন দেখতে পাবেন। অধিকাংশ কপি আইফোনে এই ফিচারটি থাকেনা। তবে অনেক কপি আইফোন এই ফিচারটি অনেক ভালোভাবে নকল করে থাকে, তাই পোস্টে উল্লেখিত একাধিক নিয়ম অনুসরণ করে কপি আইফোন চেনার চেষ্টা করতে হবে।

অ্যাপল অ্যাপ স্টোর চেক করুন

অ্যাপল অ্যাপ স্টোর আইকনে ট্যাপ করলে অরিজিনাল আইফোন এর ক্ষেত্রে আপনি সরাসরি অ্যাপল স্টোরে পৌঁছে যাবেন। অন্যদিকে আইফোন যদি কপি হয় সেক্ষেত্রে সেটিতে অ্যাপ স্টোর কাজ করবেনা, বরং অন্য কোনো এপ্লিকেশন স্টোরে নিয়ে যাবে। কপি আইফোন চেনার সবচেয়ে সহজ উপায় এটি, কেননা অ্যাপল স্টোর হুবহু কপি করা সম্ভব নয়। আইফোন সেটিংস থেকে অ্যাপল আইডি দ্বারা সাইন ইন করে কম্পিউটার বা ব্রাউজার থেকে https://appleid.apple.com/ এ লগইন করে ডিভাইস লিস্ট চেক করুন। আপনার আইফোন সেখানে দেখানো হবে। এছাড়া আইক্লাউড ডটকমে লগইন করে সেটিংস সেকশনে গেলেও আপনার আইফোন সেখানে দেখানো হবে। তাহলে বুঝতে পারবেন যে আপনার আইফোন আসল আইফোন।

স্টোরেজ ক্যাপাসিটি চেক করুন

স্টোরেজ ক্যাপাসিটি চেক করার মাধ্যমেও আসল ও নকল আইফোন চেনা যেতে পারে। আসল আইফোনে কোনো ধরনের এক্সপেন্ডেবল স্টোরেজ থাকেনা, অর্থাৎ এসডি কার্ড ব্যবহার করে আইফোনে স্টোরে বাড়ানো সম্ভব নয়। যদি কোনো আইফোন এই সুবিধা প্রদান করে, তাহলে বুঝে নিতে হবে উক্ত আইফোন সম্পূর্ণ কপি সেট। মনে রাখবেন, আসল আইফোনে স্টোরেজ এক্সপেন্ড এর কোনো সু্যোগ নেই।

অপারেটিং সিস্টেম চেক করুন

সবশেষে কোনো আইফোন এর অপারেটিং সিস্টেম চেক করেও সেটি আসল না কপি তা জানতে পারবেন। অ্যাপল তাদের সকল আইফোনে আইওএস অপারেটিং সিস্টেম ব্যবহার করে থাকে। কোনো আইফোনে যদি আইওএস ব্যতিত অন্য কোনো অপারেটিং সিস্টেম দেখতে পান, তবে ধরে নিবেন উক্ত আইফোন একটি কপি আইফোন। তবে আইওএস এর মত হুবহু দেখতে অ্যান্ড্রয়েড স্ক্রিন অনেক রয়েছে, তাই ভালোভাবে চেক না করলে আসল আইওএস চেনা সম্ভব নয়।

ওয়ারেন্টি স্ট্যাটাস চেক করুন

অথেনটিক সকল আইফোন অ্যাপল দ্বারা সরবরাহ করা হয়ে থাকে, এর ফলে প্রতিটি অরিজিনাল আইফোন এর তথ্য অ্যাপল এর ওয়েবসাইটে রয়েছে। অ্যাপল এর আইফোন ওয়ারেন্টি স্ট্যাটাস ও নেটওয়ার্ক কভারেজ স্ট্যাটাস সাইটে প্রবেশ করে আপনার আইফোন কপি নাকি তা দেখতে পারবেন।

প্রথমে অ্যাপল এর ওয়েবসাইটে প্রবেশ করুন এই লিংক ব্যবহার করে।

কিবোর্ড চেক করুন

কপি আইফোন চেক করতে পারেন আইফোন এর কিবোর্ড চেক করে। অরিজিনাল আইফোন এর কিবোর্ডের স্পেস বারে space লেখা থাকে, এছাড়া স্পেস বার এর বামে একটি ইমোজি আইকনও দেখতে পাবেন। কপি আইফোন এর ক্ষেত্রে এই ডিজাইন একই হবেনা, আবার ইমোজি আইকন এর জায়গায় কমাও থাকতে পারে।

আইফোন কেনার সময় কপি আইফোন কিনা তা চেক করতে অবশ্যই উল্লেখিত নিয়মগুলো অনুসরণ করুন। ধন্যবাদ সবাইকে।

 

CATEGORIES
Share This

COMMENTS

Wordpress (0)
Disqus (0 )